বুধবার, ১৭ Jul ২০২৪, ০৮:০৩ অপরাহ্ন

ইরানের পারচিন পরমাণু এলাকা পরিদর্শনে আইএইএ’র প্রধান

ইরানের পারচিন পরমাণু এলাকা পরিদর্শনে আইএইএ’র প্রধান

অনলাইন বিজ্ঞাপন

আলোকিত কক্সবাজার ডেক্স:
1442902383ইরানের পারচিন সামরিক এলাকা পরিদর্শন করলেন বৈশ্বিক পরমাণু কর্মসূচি পর্যবেক্ষণকারী সর্বোচ্চ সংস্থা আইএইএ’র প্রধান ইউকিও আমানো। গত রবিবার আমানো দেশটি সফরে যান। দেশটির এ অংশে পরমাণু অস্ত্র নিয়ে গবেষণা  চলছে বলে অনেক দিন ধরেই সন্দেহ করে আসছে পশ্চিমা গোয়েন্দা সংস্থাগুলো।

 

ইরানের আনবিক শক্তি সংস্থার প্রধান বেহরুজ কামালভান্দি দেশটির বার্তা সংস্থা ইরানাকে জানিয়েছেন, আমানো এদিন পারচিনের ‘বিতর্কিত জায়গাগুলো’ পরিদর্শন করেছেন। ২০০৪ সালেই প্রথম দেশটির পরমাণু কার্যক্রমে পারচিনের ভূমিকার বিষয়ে জানা যায়। ২০০৬ সালের এক প্রতিবেদননে দেখা যায়,  সেসময় আন্তর্জাতিক পরমাণু সংস্থাটির পরিদর্শকরা এখানকার কার্যক্রমে অস্বাভাবিক কোনো কিছু খুঁজে পাননি। এছাড়া তাদের পরিবেশ বিষয়ক গবেষণার ফলাফলেও পরমাণু সংক্রান্ত কোনো উপাদানের উপস্থিতির আভাস মেলেনি। তারপরও এখানকার কার্যক্রম নিয়ে পশ্চিমাদের সন্দেহ এতটুকু কমেনি। এছাড়া তিন বছর আগে এ এলাকা থেকে আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষকদের সরিয়ে নেয় ইরান।

 

পরমাণু বোমা তৈরির যে অভিযোগ পশ্চিমারা করে আসছে তা সব সময়ই অস্বীকার করেছে ইরান। তাছাড়া তাদের কর্মসূচি শান্তিপূর্ণভাবে পরিচালিত হচ্ছে বলেও দেশটি জানিয়েছে। এদিকে সম্প্রতি ইরানের সাথে ছয়জাতি চুক্তি বাস্তবায়নের অংশ হিসেবেই আমানো এ সফরে গেছেন বলে মনে করছেন পশ্চিমা কূটনীতিকরা। তবে এ ধরনের সন্দেহভাজন পরমাণু স্থাপনাগুলোতে আন্তর্জাতিক পরিদর্শকদের প্রবেশে সীমাবদ্ধতা থাকলেও এখন দেশটি সে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়েছে। গত জুলাইয়ে আন্তর্জাতিক অবরোধ কমিয়ে আনতে ইরান তার পরমাণু কর্মসূচি হ্রাস করতে রাজি হয়। আর এর ফলে দেশটি পরমাণু অস্ত্র তৈরি থেকে সরে আসবে বলে মনে করে যুক্তরাষ্ট্র।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

নিবন্ধনের জন্য আবেদিত
Desing & Developed BY MONTAKIM