শনিবার, ১৩ Jul ২০২৪, ১০:৩৬ পূর্বাহ্ন

টেকনাফে আবাসিক হোটেলগুলোতে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের নির্দেশ

টেকনাফে আবাসিক হোটেলগুলোতে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের নির্দেশ

অনলাইন বিজ্ঞাপন

নুরুল হোসাইন, টেকনাফ

সন্ত্রাস ও নাশকতামূলক কর্মকাণ্ড ঠেকাতে, অপরাধীদের গ্রেফতার করতে আবাসিক
হোটেলসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনায় ও আবাসিক এলাকায় ক্লোজ সার্কিট (সিসি) ক্যামেরা স্থাপনের নির্দেশ দিয়েছে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থা। যত দ্রুত সম্ভব এ নির্দেশনা বাস্তবায়নে প্রতিষ্ঠানের মালিকদের জানানো হয়েছে। নির্দেশনা অনুযায়ী এসব সিসি ক্যামেরা স্থাপনের যাবতীয় খরচ ভবন বা প্রতিষ্ঠানের মালিককে বহন করতে হবে। পাশাপাশি নিয়মিত চেকপোস্ট বসিয়ে অবৈধ যানবাহনে তল­াশি এবং মাদক ব্যবসার বিরুদ্ধে অভিযান জোরদারের নির্দেশ দিয়েছেন। নির্দেশনা অনুযায়ী বিভিন্ন পয়েন্টে শুরু হয়েছে চেক
পোস্ট বসিয়ে তল­াশি।এ প্রসঙ্গে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার লোকজন মত প্রকাশ করেন, যে কোনো ধরনের জঙ্গি হামলা ঠেকানো ও অপরাধীদের দ্রুত আইনের আওতায় সিসি ক্যামেরার বিকল্প নেই। টেকনাফ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আতাউর রহমান খোন্দকার বলেন, অপরাধ দমন ও নিয়ন্ত্রণে রাখতে এবং যে কোনো ধরনের জঙ্গি হামলা ও নাশকতা দমনে সিসি ক্যামেরার আওতায় নিয়ে আসার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এ লক্ষ্যে বাণিজ্যিক ও আবাসিক এলাকায় সিসি ক্যামেরা স্থাপনের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তিকে বলা হবে। তারা নিজ খরচেই সিসি ক্যামেরা স্থাপন করবেন। পুলিশ ও আইন প্রয়োগকারী সংস্থার লোকজন সিসি ক্যামেরা স্থাপনের বিষয়টি মনিটরিং করবে। সূত্র জানায়, স্থাপিত সিসি ক্যামেরায় ২৪ ঘণ্টা আশপাশের ভিডিও ধারণ করতে হবে। ফলে কেউ অপরাধ করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলেও সিসি ক্যামেরায় তা ধারণ হয়ে থাকবে। এতে নিরীহ লোকজন আটক হওয়ার আশংকা কমে যাবে। গোয়েন্দা সংস্থা শুধু এসব ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যোগাযোগ করে ক্যামেরা স্থাপনের বিষয়টি তদারক করবে। প্রতিটি ক্যামেরার ১ শ মিটারের মধ্যে লোকজনের চিত্র শতভাগ ক্যামেরায় ধারণ করা যাবে।
সূত্র আরও জানায়, জননিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ও অপরাধ দমনে গুরুত্বপূর্ণ স্থানে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা স্থাপন করতে হবে।সে সব পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। ওসব পয়েন্টে অপরাধ অনেকাংশেই কমে এসেছে। তাই এবার এর বাইরেও গুরুত্বপূর্ণ সব শপিংমল, মার্কেট, বহুতল বাণিজ্যিক ভবন, আবাসিক এলাকায় বাড়িতে ব্যক্তিগত ও প্রাতিষ্ঠানিক খরচে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের ওপর জোর দেয়া হচ্ছে।গোয়েন্দা সংস্থার নির্দেশনা পাওয়ার কথা স্বীকার করে হিলটপের পরিচালক গিয়াস উদ্দিন বলেন,হোটেল পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা বসাতে বলা হয়েছে। এছাড়া এ বিষয়ে বিস্তারিত জানার জন্য
থানার ওসির সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

নিবন্ধনের জন্য আবেদিত
Desing & Developed BY MONTAKIM