বাংলাদেশ, , রোববার, ২৭ নভেম্বর ২০২২

শেখ হাসিনা গোটা বিশ্বের বিষ্ময়-স্বপন কক্সবাজার সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে

আলোকিত কক্সবাজার ।।  সংবাদটি প্রকাশিত হয়ঃ ২০২২-১১-১৯ ১৮:৫০:৫৮  

 

ছবি- আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন।

 

রাষ্ট্র পরিচালনার ক্ষেত্রে শেখ হাসিনা গোটা বিশ্বের বিষ্ময় দাবি করে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জাতিয় সংসদের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন বলেছেন, বাংলাদেশের যত উন্নযন, যত অগ্রগতি সবকিছু বঙ্গবন্ধুৃ কন্যা শেখ হাসিনার হাত ধরেই হয়েছে। এত উন্নয়ন যা আপনারা হাতে গুনে শেষ করতে পারবেন না। তাই বলতে গেলে রাষ্ট্র পরিচালনার ক্ষেত্রে শেখ হাসিনা আজ গোটা বিশ্বের বিষ্ময়। এত মেধা, এত সততা, এত যোগ্যতা, এত প্রজ্ঞা, এত পরিশ্রম, এত দেশপ্রেম, এত মহত্ত্ব বিশ্বে আর একজন নেই। এ কারণে আবাক বিশ্ব শেখ হাসিনার দিকে বিষ্ময়ে তাকিয়ে রয়।

তিনি বলেন, শেখ হাসিনা আমাদের আনন্দ, বেদনা, হাসি, কান্না। কিছু কিছু লোক শেখ হাসিনাকে পছন্দ করেন না। আসলে তারা বাংলাদেশকেই পছন্দ করেন না। কারণ তারা কোন কিছুতেই জননেত্রী শেখ হাসিনার সাথে পেরে উঠছেন না। যার প্রমাণ বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালে পাঁচবার দুর্নীতিতে দেশকে চ্যাম্পিয়ন করেছিল।

আজ শনিবার (১৯ নভেম্বর) সকাল এগারোটার দিকে কক্সবাজার পৌর প্রিপরেটরি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কক্সবাজার সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন ও কাউন্সিলে প্রধান অতিথির বক্তব্য প্রদানকালে তিনি উপরোক্ত কথা বলেছেন।

আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, ক্ষমতায় যে থাকুক না কেন একটা দেশের নাগরিক কখনো দেশকে শ্রীলংকার মতো ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত হোক চাইতে পারেনা। আজকে যদি বিএনপি ক্ষমতায় থাকতো বা অন্যকোন দল ক্ষমতায় থাকতো আওয়ামী লীগ কখনো এমন কামনা করতো না। আমরা চাইতাম আমার দেশটি টিকে থাকুক। তবে আজকে বিশ্ব সংকটের কারণে আমরা কিছুটা বেকায়দায় রয়েছি। তবে শেখ হাসানা ক্ষমতায় আছেন বলে এ পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে সক্ষম হয়েছি। যদি কোন অর্ধশিক্ষিত মহিলা ক্ষমতায় থাকতো তবে অনেক আগেই বাংলাদেশকে শ্রীলংকার পরিণতি ভোগ করতে হতো।

তিনি বলেন, শেখ হাসিনা যখন ক্ষমতা গ্রহণ করেন তখন রিজার্ভ ছিল ৯১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। বর্তমানে রিজার্ভের পরিমাণ দাড়িয়েছে ৪৬৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে। সে সময় মাথাপিছু আয় ছিল ৬৮৬ মার্কিন ডলার। বর্তমানে মাথাপিছু আয় দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ৮শ ২৪ মার্কিন ডলারে। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর দিনমজুরের আয় বেড়েছে, সরকারী কর্মকর্তাদের বেতন বেড়েছে, শিক্ষকের বেতন বেড়েছে, সমাজের প্রত্যেক শ্রেণীর মানুষের আয় বৃদ্ধি পেয়েছে।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে স্বপন বলেন, জামায়াত বিএনপি নানা ষড়যন্ত্র করছে। নিজেদের মধ্যে দ্ব›দ্ব ভুলে গিয়ে, ভুল বুঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে মানুষের ঘরে ঘরে জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের কথা পৌঁছে দিতে হবে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু আমাদের রাজনৈতিক শিক্ষক। তিনি কখনো আওয়ামী লীগের নেতা ছিলেন না। তিনি এ ভূ-খন্ডের প্রতিটি মানুষের মুখের হাসি ফুটাতে চেয়েছিলেন। সর্বশেষ নিজের বুকের তাজা রক্ত দিয়েছেন তবুও আপোষ করেন নাই, বিম্বাস ঘাতকতা করেন নাই, প্রতারণা করেন নাই।

তাই বিএনপি কিংবা অন্যদল করে থাকলেও আওয়ামী লীগ করতে কোন বাধা নেই বলেও জানান আওয়ামী লীগের এ নেতা।

কক্সবাজার সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক মাহমুদুল করিম মাদুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা, উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক ফরিদুন্নাহার লাইলী, সাবেক ছাত্র নেতা প্রষান্ত ভূষণ বড়ুয়া, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট ফরিদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, কক্সবাজার সদর-রামু-ঈদগাঁও আসনের সাংসদ সাইমুম সরওয়ার কমল, চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সাংসদ জাফর আলম, মহিলা সাংসদ কাণিজ ফাতেমা মোস্তাকসহ জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র নেতারা।

পরে বিকেল পৌনে পাঁচটার দিকে প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীদের সমযোতার মাধ্যমে মাহমুদুল করিম মাদুকে সভাপতি এবং সৈয়দ রেজাউর রহমানকে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে ঘোষণা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান।


পূর্ববর্তী - পরবর্তী সংবাদ
                                       
ফেইসবুকে আমরা