রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০১:১৯ পূর্বাহ্ন

প্রাক্তনের সঙ্গে বন্ধুত্ব রাখা উচিত?

প্রাক্তনের সঙ্গে বন্ধুত্ব রাখা উচিত?

অনলাইন বিজ্ঞাপন

সবার জীবনে মোটামুটি একবার হলেও প্রেম আসে। প্রেম কারো ক্ষেত্রে গভীর হয় আবার কারো ভেঙে যায়। বাধ্য হয়ে অন্য কারোর সঙ্গী হতে হয়। অনেকটা সময় একজন মানুষকে চেনা, ঘনিষ্ঠ হওয়া, নিজের ভালো লাগা, খারাপ লাগা সবটুকু তাকে জানানোর পরেই বিচ্ছেদ।

এটা সহজে মেনে নিতে একটু কষ্ট হয়। অনেকের দীর্ঘদিনের প্রেমিক বা প্রেমিকার সঙ্গে বিচ্ছেদের পর বাবা-মায়ের পছন্দের মানুষকে বিয়ে করতে হয়। নতুন সঙ্গীর সঙ্গেও সম্পর্ক গড়ে ওঠে; কিন্তু পুরনো প্রেমিক বা প্রেমিকার স্মৃতি মনের কোণে হয়তো থেকে যায়। তবে সেই মানুষটি যদি বিয়ের পরেও আপনার সঙ্গে বন্ধুত্বের সম্পর্ক রাখতে চায়? তাহলে কী করবেন?
>> বিবাহিত জীবনের মূল ভিত্তি বিশ্বাস। তাই নতুন সঙ্গীর কাছ থেকে প্রেমিক বা প্রেমিকার বিষয়টি না লুকানোই শ্রেয়। আপনাকেই বিষয়টি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। পুরনো প্রেমিকের সঙ্গে শুধু বন্ধুত্ব রাখা সম্ভব কি না? মানুষের মন ঘুরে যেতেই পারে। মনে রাখবেন, আপনার সঙ্গে আরেকজনের জীবন জড়িত। যদি মনে কোনো সন্দেহ থাকে, তাহলে এই পথে না যাওয়াই ভালো।

>> যদি মনে করেন, পুরনো প্রেমের সম্পর্ক থেকে নিজেকে পুরোপুরি বের করতে পেরেছেন। নতুন সঙ্গীর সঙ্গে ভালো আছেন। প্রাক্তনের সঙ্গে বন্ধুত্ব আপনার বিবাহিত জীবনে প্রভাব ফেলবে না। তাহলে বন্ধুত্বের কথা ভাবতে পারেন। তবে পুরো বিষয়টা আপনার সঙ্গীকে জানিয়ে করবেন।

>> সম্পর্কে থাকাকালীন একে অপরের প্রতি এক ধরনের অধিকারবোধ জন্মে যায়। কিন্তু বিচ্ছেদের পরে সেটি থাকে না। তাই কিছু বিষয়ে আপনার এবং তার নিজস্ব পরিধির ব্যাপারে জানা থাকাই ভালো।

সূত্র : আনন্দবাজার, কালেরকণ্ঠ


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

নিবন্ধনের জন্য আবেদিত
Desing & Developed BY MONTAKIM