বৃহস্পতিবার, ০৪ জুন ২০২০, ০৪:৪০ পূর্বাহ্ন
নোটিশঃ
আলোকিত কক্সবাজার অনলাইন পত্রিকার  উন্নয়ন কাজ চলছে ; সাময়িক সমস্যার জন্য আন্তিরকভাবে দুঃখিত - আলোকিত কক্সবাজার পরিবারে যুক্ত থাকায় আপনার কাছে কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ।
পর্যটন

“অসচেতনতায় মারা যাচ্ছে ডলফিন”

সোহেল আরমানঃ মাস ফিরে আসতেই কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে আবারও ভেসে আসল বিশাল আকৃতির মৃত ডলফিন। ধারণা করা হচ্ছে জেলেদের জালে আটকা পড়ে ডলফিনের মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (১২ মে) কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের উখিয়া উপজেলার মো. শফির বিল এলাকায় মৃত এই ডলফিন দেখা যায়। একইদিন কক্সবাজার পরিবেশ অধিদপ্তরের ফেইসবুক পেইজে মৃত ডলফিনের বিষয়ে একটি লেখা পোস্ট বিস্তারিত

কক্সবাজারের সকল পর্যটন কেন্দ্র বন্ধ ঘোষণা

ডেস্ক নিউজ: করোনার ঝুঁকি এড়াতে অবশেষে কক্সবাজারের সকল পর্যটন কেন্দ্র বন্ধ ঘোষণা করেছে জেলা প্রশাসন। পরবর্তী ঘোষণা না আসা পর্যন্ত আদেশটি বলবত থাকবে। বৃহস্পতিবার বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন। আগামীকাল শুক্রবার (১৯ মার্চ) থেকে সেন্টমার্টিনগামী সকল পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচলও বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে সিদ্ধান্ত আসেনি পর্যটন কেন্দ্রিক আবাসিক হোটেল,

বিস্তারিত

কক্সবাজারে পর্যটক মৃত্যুর পর জেলা প্রশাসনের অভিযান

শামীম, কক্সবাজার: সৈকতের সুগন্ধা পয়েন্টে পচা, বাসি ও ভেজাল খাদ্যদ্রব্য বিক্রি এবং উপকরণ সংরক্ষণসহ নানা অনিয়মে চলা দোকানের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু করেছে জেলা প্রশাসন। বৃহস্পতিবার রাতে ভ্যানে পরিবেশন করা মাছ ভাজি খেয়ে সৌরভ নামে এক পর্যটকের মৃত্যুর খবর প্রচারের পর শুক্রবার রাতে এ অভিযান চালায় জেলা প্রশাসনের মোবাইল কোর্ট। অভিযানে ‘ফ্রেশ সী ফিশ’, ‘ক্যাফে বারবিকিউ’,

বিস্তারিত

“করোনা প্রতিরোধে করণীয় ঠিক করতে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত”

ওয়াহিদ রুবেল: পর্যটন এলাকায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয় ঠিক করতে ব্যবসায়ীদের সাথে মতবিনিময় সভা করেছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসন। শনিবার (১৪ মার্চ) জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে শহীদ এটিএম জাফর আলম সিএসপি সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন কক্সবাজার জেলা প্রশাসক মো: কামাল হোসেন। সভাপতির বক্তব্য প্রদানকালে তিনি, হোটেল, রেস্তোরাঁ, কীটকট, বীচ বাইক চালকসহ সকলকে

বিস্তারিত

“বিনোদন কেন্দ্র হচ্ছে পর্যটন শহরের তিন দীঘি”

ওয়াহিদ রুবেল: সরকার কক্সবাজারকে আধুনিক পর্যটন নগরী হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে ২০১৫ সালে প্রতিষ্ঠা করেন কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক)। আর উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ মাস্টার প্লানের মাধ্যমে কক্সবাজারের সৌন্দর্য্য বৃদ্ধির কাজ করছেন। ইতিমধ্যে শহরের বিভিন্ন স্থানে স্থাপন করা হয়েছে দৃষ্ট নন্দন স্থাপনা। সৌন্দর্য্য বৃদ্ধির কাজ চলছে শহরের অভ্যন্তরে দীর্ঘদিন পরিত্যক্ত থাকা তিনটি দীঘিরও। এসব দীঘির সংস্কারের কাজ

বিস্তারিত

নিবন্ধনের জন্য আবেদিত
Design and Develop By MONTAKIM
themesba-lates1749691102