সেনাবাহিনীর পদস্থ কর্মকর্তাদের চাকরিচ্যুত করার হুমকি দিলেন তারেক

সেনাবাহিনীর পদস্থ কর্মকর্তাদের চাকরিচ্যুত করার হুমকি দিলেন তারেক

ভাগ

নিউজ ডেস্ক:

বিএনপি নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে দেশ শাসনের দায়িত্বভার গ্রহণ করলে সরকারের পক্ষে কাজ করার অপরাধে সেনাবাহিনীর উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের চাকরিচ্যুত করে পেনশনসহ অন্যান্য সুবিধা বাতিল করার হুমকি দিয়েছেন লন্ডনে অবস্থানকারী বিএনপি নেতা তারেক রহমান। নির্বাচনে সরকারের সঙ্গ ত্যাগ করে জনগণ তথা বিএনপির পক্ষে কাজ না করলে সেনাবাহিনীর পদস্থ কর্মকর্তাদের শাস্তির হুমকি দেন তারেক।
লন্ডন থেকে প্রকাশিত অনলাইন পত্রিকা ওয়ান বাংলা নিউজের বরাতে তথ্যের সত্যতা সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া গিয়েছে।

এদিকে একাধিক দণ্ডের সাজা নিয়ে লন্ডনে পলাতক জীবন যাপন করা তারেক রহমান নির্বাচনের পূর্বে রাষ্ট্রের আজ্ঞাবহ সেনাবাহিনীকে হুমকি ও উস্কানি দিয়ে দেশের পরিস্থিতি অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করছেন বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষক মোহাম্মদ এ আরাফাত। সেনাবাহিনীর সদস্যদের হুমকি দেওয়ায় দণ্ডপ্রাপ্ত তারেক রহমানের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

ওয়ান বাংলা নিউজের বরাতে জানা যায়, ৭ই নভেম্বর জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার (১৩ নভেম্বর) পূর্ব লন্ডনের দ্যা রয়্যাল রিজেন্সি অডিটরিয়ামে যুক্তরাজ্য বিএনপি আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির ভাষণে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের প্রকাশ্যে হুমকি দেন তারেক। ২৫ মিনিট ভাষণের এক পর্যায়ে তারেক রহমান নির্বাচনের পূর্বে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর পদস্থ কর্মকর্তাদের বিএনপির পক্ষে কাজ করার আহ্বান জানান। বিএনপির পক্ষে কাজ করে নির্বাচনে বিএনপিকে জয়ী করতে পারলে সেনা সদস্যদের জন্য বিশেষ পুরষ্কারেরও ঘোষণা দেন তারেক। আর যদি সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা কথা অমান্য করেন তাহলে বিএনপি ক্ষমতায় এলে তাদের চাকরিচ্যুত করার হুমকি দেন তারেক রহমান। বিশেষ করে বিগত ১০ বছরে আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে সেনাবাহিনীর যেসব সদস্যরা প্রশাসনসহ অন্যান্য জায়গায় নিয়োগ পেয়েছেন বিএনপি ক্ষমতায় এলে তাদেরকে চাকরিচ্যুত করার ঘোষণা দেন তারেক। পাশাপাশি চাকরিচ্যুতদের অবসর ভাতাসহ অন্যান্য ভাতা বাতিল করে দেওয়ারও হুমকি দেন তারেক।

এদিকে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মত সুসংগঠিত ও দেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ একটি বাহিনীর প্রতি এমন হুমকিকে দেশ বিরোধী মন্তব্য করে রাজনৈতিক বিশ্লেষক মোহাম্মদ এ আরাফাত বলেন, তারেক রহমান নির্বাচনের পূর্বে দেশের পরিস্থিতি অস্থিতিশীল করতে সেনাবাহিনীকে হুমকি ও উস্কানি দিয়েছেন। জনগণের ওপর আস্থা হারিয়ে তৃতীয়পক্ষের সাহায্য নিয়ে জোরপূর্বক ক্ষমতা দখল করতে তারেক রহমান ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছেন। সেনাবাহিনী বাংলাদেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব রক্ষা করতে বদ্ধপরিকর। দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব রক্ষা করতে সেনাবাহিনীর সদস্যরা জীবনও দিয়েছেন। দেশপ্রেমিক সেনাবাহিনীর সদস্যদের ব্ল্যাকমেইল করার চেষ্টা করছেন তারেক রহমান। একজন চিহ্নিত দুর্নীতিবাজ ও দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি দেশের সার্বভৌমত্বের ধারক ও বাহক বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে হুমকি দিয়ে পরোক্ষভাবে রাষ্ট্রকে হুমকি দিয়েছে। তারেক রহমানের এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ গণতন্ত্র, স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের জন্য সরাসরি হুমকি স্বরূপ। সূত্র-বাংলা নিউজ পোস্ট

ভাগ

কোন মন্তব্য নেই

একটি উত্তর ত্যাগ