কামাল বিরহে পুড়ছে খালেদা

কামাল বিরহে পুড়ছে খালেদা

ভাগ

ডেক্স নিউজঃ

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৯ মাস ধরে কারাবন্দী  বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। গত মঙ্গলবার (২ অক্টোবর) বিকেলে সাক্ষাৎ করেন তার স্বজনরা। সেখানে প্রায় দেড় ঘন্টা ব্যাপী খালেদার সঙ্গে তাদের বৈঠক হয়। দীর্ঘ এই বৈঠকে নির্বাচন নিয়ে আলোচনা হয়। বিএনপিকে জাতীয় ঐক্যে নিতে শর্ত দেওয়ায় খালেদা ড. কামালের উদ্দেশ্যে বলে “উনি এমনটি করবে আমি কখনো ভাবি নি“।

কারাগারে খালেদার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে যাওয়া স্বজনদের মধ্যে ছিলেন- খালেদা জিয়ার ভাই শামীম এস্কান্দার, বোন সেলিনা ইসলাম, ভাইয়ের স্ত্রী কানিজ ফাতেমা, ভাতিজা অভিক এস্কান্দার, ভাগিনা ডা. মো. মামুন এবং তারেক জিয়ার স্ত্রী জোবায়দা রহমানের বড়বোন শাহীনা জামান।

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন এবং সেই নির্বাচনে বিএনপির অবস্থান কী হবে তা নিয়ে দিকনির্দেশনা দেন খালেদা জিয়া। কারাগার থেকে তিনি বার্তা দিয়েছেন, যে কোনো পরিস্থিতিতে, যে কোনো মূল্যে বিএনপিকে নির্বাচনে যেতে বলেছেন।

বিএনপি সূত্রে জানা যায়, এর আগে খালেদা জিয়া বলেছিল, সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচনের উদ্দেশ্যে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলগুলোকে নিয়ে ঐক্য করতে হবে। এমনকি গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বেও বিএনপির আপত্তি নেই বলেও জানিয়েছিলেন। বৈঠকে খালেদা আরও উল্লেখ করে, কারাবন্দীর আগে ড. কামাল খালেদাকে নিশ্চিত করেছিল জাতীয় নির্বাচনে বিএনপির সাথেই থাকবেন তিনি। আর নির্বাচনের আগে এসে তার পরিবর্তনে খালেদা হতাশ । বর্তমানে নির্বাচন প্রসঙ্গে ড. কামাল হোসেনের পিছুটানে খালেদা জিয়া হতাশা প্রকাশ করে বলেছেন, ড. কামাল হোসেন যে এমন করবেন তা তিনি ভাবতেই পারেননি।

খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠক করার পরপরই খালেদা জিয়ার ভাই শামীম এস্কান্দার বিএনপির নেতাদের সঙ্গে কথা বলেছেন এবং তাদের কাছে খালেদা জিয়ার নির্বাচনী বার্তা পৌঁছে দেন। এবং ড. কামালের পিছুটানের কারণে খালেদা জিয়ার হতাশা ও ক্ষোভের বিষয়টি নেতাকর্মীদের কাছে তুলে ধরেন।

স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন জাগে, তাহলে কি খালেদা এখন কারাগরে ড. কামাল বিরহে পুড়ছেন? সূত্র-অদ্বিতীয় বাংলা

ভাগ

কোন মন্তব্য নেই

একটি উত্তর ত্যাগ