ছেলে প্রেম করে বিয়ে করায় জেলে বাবা !

প্রকাশ: ২০১৯-০৪-৩০ ১০:১৮:০১ || আপডেট: ২০১৯-০৪-৩০ ১০:২৮:১০

কক্সবাজার ৩০ এপ্রিল ১৯

ছেলে মোর্শেদ আলম ভালবাসার স্বীকৃতি দিতে নোটারী পাবলিকে বিয়ে করেন প্রেমিকা তাসফিয়া সুলতানাকে। আর ছেলের এ বিয়েই কাল হয়ে দাড়ালো পিতা নুরুল আজিমের জীবনে। পুত্রবধুর পিতার দায়ের করা মামলায় সোমবার তাকে শ্রীঘরে যেতে হয়েছে।

উক্ত মামলায় সোমবার (২৯ এপ্রিল) পিতাপুত্র ও পুত্রবধুকে আটক করা হয়। পরে পুত্রবধু তাসফিয়াকে থানায় রাখা হলেও জেলে যেতে হয়েছে পিতা ও পুত্রকে।

ঘটনাটি ঘটেছে কক্সবাজার সদর উপজেলার ভারুয়খালী ইউনিয়নের ঘোনারপাড়া এলাকায়। এ ঘটনায় এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।

জানা যায়, ভারুয়াখালী ইউনিয়নের ঘোনারপাড়া এলাকার নুরুল আজিমের ছেলের সাথে একই এলাকার মোজাফ্ফর আহমদের কন্যা তাসফিয়া সুলতানার দীর্ঘদিনের পরিচয় ছিলো। পরিচয়ের সূত্র ধরে একে অপরকে ভালবেসে ফেলেন তারা। দীর্ঘদিনের ভালবাসার পূর্ণতা দিতে গত ২ ফেব্রুয়ারি দুইজনই কক্সবাজার নোটারী পাবলিকে উপস্থিত হয়ে ৫ লাখ টাকার দেন মোহরে তারা বিয়ের কাজ শেষ করেন।

দুইজন প্রাপ্ত বয়স্ক নারী পুরুষ নিজেদের ইচ্ছায় বিয়ে করলেও বিয়ে মেনে নিতে পারেননি মেয়ের পিতা মোজাফ্ফর আহমদ। তিনি মেয়েকে অপহরণের অভিযোগ এনে মোর্শেদ ও তার পিতাকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলায় সোমবার পিতা পুত্র ও পুত্রবধুকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।

পরবর্তীতে পুত্রবধু তাসফিয়াকে থানায় আটক রাখলেও শ্বাশুড় ও স্বামীকে জেল হাজতে প্রেরণ করে পুলিশ।

ট্যাগ :